tag: শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ছুটি বাড়ল ৬ আগস্ট পর্যন্ত। আমাদের খবর
Tue. Oct 20th, 2020

আমাদের খবর

খবরের সাথে সব সময়

শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ছুটি বাড়ল ৬ আগস্ট পর্যন্ত।

1 min read
শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ছুটি বাড়ল

শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ছুটি বাড়ল ৬ আগস্ট পর্যন্ত। প্রাণঘাতী করোনা ভাইরাসের প্রাদুর্ভাবে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ছুটি আবারও বাড়ানো হয়েছে। আগামী ৬ আগস্ট পর্যন্ত সব ধরনের শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ থাকবে। সোমবার শিক্ষা মন্ত্রণালয় এবং প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়ের পৃথক বিজ্ঞপ্তিতে এ সকল তথ্য জানানো হয়।

শিক্ষা মন্ত্রণালয় থেকে এক বার্তায় জানা যায় প্রাণঘাতী করোনা ভাইরাসের কারণে ছাত্র ছাত্রীদের নিরাপত্তার কথা বিবেচনা করে দেশের সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠান আগামী ৬ আগস্ট পর্যন্ত বাড়ানো হয়।

প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয় থেকে জানানো হয় করোনা ভাইরাস সংক্রমণ বিজ্ঞপ্তি।

করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ থেকে শিক্ষার্থীদের সুরক্ষার লক্ষ্যে আগামী ৬ আগস্ট পর্যন্ত সব ধরনের শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ থাকবে।

এর আওতায় থাকবে সরকারি ও বেসরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় এবং কিন্ডারগার্টেন।

শিক্ষার্থীদের বাসস্থানে অবস্থানের বিষয়টি অভিভাবকবৃন্দ নিশ্চিত করবেন এবং স্থানীয় প্রশাসন তা নিবিড়ভাবে পরিবীক্ষণ করবেন।

সংশ্লিষ্ট বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষকগণ তাদের নিজ নিজ শিক্ষার্থীদের খোজ খবর রাখবেন।

তারা যেন বাসস্থানে অবস্থান করে পাঠ্যবই অধ্যয়ন করে সে বিষয়টি অভিভাবকদের মাধ্যমে নিশ্চিত করবেন।

রবিবার শিক্ষা মন্ত্রণালয় এবং প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয় যৌথভাবে আলোচনা করে সরকারের উচ্চ পর্যায়ে দুই ধরনের ছুটির প্রস্তাব পাঠায়।

একটি আগামী ৩০ জুন পর্যন্ত আর অন্যটি ঈদুল আজহার ছুটি শেষ করে আগামী ৬ আগস্ট পর্যন্ত।

তবে সরকারের উচ্চ পর্যায় থেকে আগামী ৬ আগস্ট পর্যন্ত শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ছুটি বাড়ানোর ব্যাপারে সিদ্ধান্ত আসে। এর পরিপ্রেক্ষিতে দুই মন্ত্রণালয়ই আগামী ৬ আগস্ট পর্যন্ত ছুটি বাড়ানোর ঘোষণা দেন।

করোনা ভাইরাস থেকে শিক্ষার্থীদের রক্ষা করতে গত ১৭ মার্চ থেকে দেশে সব ধরনের শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ আছে।

দফায় দফায় সেই ছুটি গতকাল পর্যন্ত ছিল। তারপর আগামী ৬ আগস্ট পর্যন্ত প্রায় দুই মাস ছুটি বাড়ানো হলো।

তবে গত ১ জুন থেকে প্রশাসনিক কাজের জন্য শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের অফিস কক্ষ খোলা রাখার অনুমতি দিয়া হয় শিক্ষা মন্ত্রণালয় থেকে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *